Main Menu

বিয়ানীবাজারে নারী ভোটারদের উপস্থিতি ও ভোটেই জয়-পরাজয়ের সমীকরণ

বিয়ানীবাজার প্রতিনিধি:
জমে উঠেছে বিয়ানীবাজার পৌরসভা নির্বাচনের প্রচার-প্রচারণা। জমজমাট প্রচারণার পাশাপাশি এবার পৌরপিতা কে হবেন তা নিয়ে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা। সকলের মনে একটাই প্রশ্ন-কে হবেন বিয়ানীবাজার পৌরসভার কর্তা? এ প্রশ্নের উত্তর খুঁজতে অনেকেই মিলাচ্ছেন নানা সমীকরণ, কষছেন নানা হিসেব।

স্থানীয় রাজনৈতিক বিশ্লেষক ও সংশ্লিষ্টদের অভিমত-এবারের নির্বাচনে নারী ভোটারদের হাতেই জয়-পরাজয়ের সমীকরণ নির্ভর করবে। নারী ভোটারদের উপস্থিতি এবং তাদের পছন্দের প্রার্থীকে ভোট দেয়ার উপর নির্ভর করছে মেয়রের ভাগ্য। তারা বলছেন, নারী ভোটাররা পাল্টে দিতে পারেন এবারের জয়-পরাজয়ের হিসাব।

 

এছাড়া স্থানীয়ভাবে প্রথমবারের মত ইভিএমে ভোট হচ্ছে। এই প্রক্রিয়ার সাথেও পরিচিত নন বিয়ানীবাজারের নারীরা। ফলে ভোটের দিন তাদের উপস্থিতি নিয়ে শঙ্কা আছে বলে মনে করেন প্রেসক্লাব সভাপতি সজীব ভট্রাচার্য।

 

পৌর নির্বাচন নিয়ে কথা হয় বেশ কয়েকজন প্রমীলা ভোটারদের সাথে। তারা জানালেন, নারী অধিকার নিয়ে কাজ করবেন, নারীদের জন্য ইতিবাচক ভূমিকা রাখবেন এমন কাউকেই নির্বাচিত করতে চান তারা।

 

পৌর এলাকার ভোটার ফাতেমা ইয়াসমিনের সাথে কথা হয় নির্বাচন নিয়ে। তিনি বলেন, মেয়র একটি পৌর এলাকার অভিভাবক, তার হাতেই শহরের উন্নয়নের ভাগ্য। তাই এমন কাউকে ভোট দিতে চাই যিনি শহরের উন্নয়নে কাজ করবেন।

 

কলেজ পড়ুয়া রিমি আক্তার এবারই প্রথম ভোট দিবেন। তিনি জানান, এমন কাউকেই মেয়র হিসেবে ভোট দিতে চাই যিনি নির্বাচিত হলে নারীদের জন্য কাজ করবেন। আমাদের সুবিধার কথা চিন্তা করবেন। স্কুল শিক্ষিকা নাজনীন সুলতানা বলেন, আমার ভোট এমন কাউকে দিবো যিনি জলবদ্ধতা নিরসন করবেন।

 

বিয়ানীবাজার উদীচির সাবেক আহবায়ক সরওয়ার হোসেন বলেন, এবারের পৌর নির্বাচনে নারী ভোটার বেশি হওয়ায় জয়-পরাজয় নির্ধারণে তাদের একটি বড় ভূমিকা থাকবে। সাধারণত নারী ভোটারদের যে অংশ শিক্ষিত, তারা ভোটাধিকার প্রয়োগে কোন প্রার্থী উন্নয়নে কাজ করবেন, নারী অধিকার নিয়ে সোচ্চার থাকবেন সেগুলো বিবেচনা করে থাকে। আরেকটি অংশ যারা এতটা শিক্ষিত না তারা ভোটাধিকার প্রয়োগে অনেক সময় অন্যের ধারা প্রভাবিত হয়ে থাকে। অনেকেই আবার দলীয় পরিচয়, আঞ্চলিকতা এসব বিবেচনা করে ভোট দিয়ে থাকে।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published.