Main Menu

শায়েস্তাগঞ্জে ‘সুন্দি কচ্ছপ’ উদ্ধার

নিউজ ডেস্ক:
হবিগঞ্জের শায়েস্তাগঞ্জ উপজেলা থেকে একটি ‘সুন্দি কচ্ছপ’ উদ্ধার করেছে বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ অধিদপ্তর।

কচ্ছপটিকে একটি জলাশয়ের পাশে সড়কে কুড়িয়ে পেয়েছিলেন স্থানীয় কয়েকজন তরুণ।

 

শনিবার (৪ জুন) উপজেলার নোয়াগাঁও এলাকা থেকে কচ্ছপটি উদ্ধার করে বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ অধিদপ্তর হবিগঞ্জ জেলা কার্যালয়ে আনা হয়। বিভাগীয় কার্যালয়ের নির্দেশনা অনুযায়ী পরে সেটিকে অবমুক্ত করা হবে।

বন্যপ্রাণী ব্যবস্থাপনা ও প্রকৃতি সংরক্ষণ অধিদপ্তর হবিগঞ্জ জেলা কার্যালয়ের ফরেস্টার তোফায়েল আহমেদ চৌধুরী জানান, নোয়গাঁওয়ের কয়েকজন তরুণ গত শুক্রবার কচ্ছপটিকে একটি জলাশয়ের পাশে সড়কে হাঁটতে দেখেন। পরে একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকের ‘ডেসপারেটলি সিকিং হবিগঞ্জ’ গ্রুপে আপলোড করা হয়েছিল। সেটি দেখে শনিবার কচ্ছপটি উদ্ধার করে আনা হয়েছে। বিভাগীয় বন কর্মকর্তার নির্দেশনা অনুযায়ী পরে প্রাকৃতিক পরিবেশে অবমুক্ত করা হবে।

কচ্ছপটি সম্পর্কে বন্যপ্রাণী সংরক্ষণ সোসাইটি (ডব্লিউসিএস) বাংলাদেশের বণ্যপ্রাণী অপরাধ দমন প্রোগ্রামের সমন্বয়কারী সামিউল মোহসেনিন বাংলানিউজকে জানান, এ প্রাণীর ইংরেজি নাম Indian flapshell turtle। বাংলাদেশে এদের সুন্দি কাছিম বা চিতা কাছিম বলে ডাকা হয়। তাদের ভারত, পাকিস্তান, নেপাল, শ্রীলঙ্কা, মায়ানমার, থাইল্যান্ড এবং বাংলাদেশে পাওয়া যায়। বাংলাদেশের ২০১২ সালের বন্যপ্রাণী (সংরক্ষণ ও নিরাপত্তা) আইনের তফসিল-২ অনুযায়ী এ প্রজাতিটি সংরক্ষিত।

তিনি আরও জানান, এ কচ্ছপগুলো স্বাদুপানির প্রাণী। বিগত দিনগুলোতে যথেচ্ছ শিকারের কারণে এখন এগুলোর সংখ্যা কমে গেছে। বন্যপ্রাণী আইন অনুযায়ী এগুলো শিকার সম্পূর্ণ নিষেধ। শিগগিরই এটিকে প্রাকৃতিক পরিবেশে ফিরিয়ে দেওয়া উচিত।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published.