Main Menu

রিক্যালিব্রেশন প্রোগ্রামে জালিয়াতি, মালয়েশিয়ায় তিন বাংলাদেশিসহ গ্রেপ্তার ৪

বিদেশবার্তা২৪ ডেস্ক:
মালয়েশিয়ায় রিক্যালিব্রেশন প্রোগ্রামে জালিয়াত চক্রের ৪ সদস্যকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। ১৫ এপ্রিল রাজধানী কুয়ালালামপুরে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেপ্তার করে দেশটির অভিবাসন বিভাগ। গ্রেপ্তারদের মধ্যে ৩ জন বাংলাদেশি ও একজন স্থানীয় নাগরিক। তাদের বয়স ২০ থেকে ৪৭ বছরের মধ্যে।

মঙ্গলবার (১৯ এপ্রিল) মালয়েশিয়া অভিবাসন বিভাগ তাদের ফেসবুক পেজে এ তথ্য জানায়।

এতে বলা হয়, জালিয়াতি প্রোগ্রাম কনক্যালিব্রেশন এনার্জি রিকগনিশন সিন্ডিকেট চক্রটি বাংলাদেশ, ইন্দোনেশিয়া এবং ভারতের মতো বিভিন্ন দেশের মোট ২৬৪টি পাসপোর্ট আরটিকে প্রেগ্রামে নিবন্ধিত করার চেষ্টা করছিল। এ ছাড়া অভিযানের সময় নগদ ৭ হাজার ২৭০.০০ রিঙ্গিত পাওয়া গেছে। ধারনা করা হচ্ছে এটি চক্রটির দৈনিক লেনদেনের অংশ।

অভিবাসন বিভাগের ধারণা, সিন্ডিকেট এই প্রোগ্রামের মাধ্যমে বিভিন্ন সেক্টরের জন্য একটি অস্থায়ী ওয়ার্ক ভিজিট পাস (পিএলকেএস) পেতে জনপ্রতি ৬,৫০০ রিঙ্গিত থেকে ৮,০০০ রিঙ্গিত এর মধ্যে ফি আরোপ করেব বলে মনে করছে অভিবাসন বিভাগ।

পাসপোর্টের পরিমাণ এবং অপারেটিং সময়ের উপর ভিত্তি করে, এই সিন্ডিকেট বিদেশী কর্মচারী, কোম্পানি বা ব্যক্তি যারা তাদের গ্রাহক, তাদের উপর প্রযোজ্য চার্জের মাধ্যমে সফলভাবে ২ মিলিয় রিঙ্গিত লাভ করেছে বলে মনে করা হচ্ছে। আরও অধিকতর তদন্ত ও ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য গ্রেফতারকৃতদের পুত্রজায়া ইমিগ্রেশন বিভাগে নেয়া হয়েছে। ইমিগ্রেশন অ্যাক্ট ১৯৫৯/৬৩, পাসপোর্ট অ্যাক্ট ১৯৬৬ এবং ইমিগ্রেশন রুলস ১৯৬৩-এর অধীনে তদন্ত করা হয়েছে।

বিশেষ করে বিদেশী এবং নিয়োগকর্তাদের সাথে সরাসরি ডিল করার এবং লেবার রিক্যালিব্রেশন প্রোগ্রামের অধীনে বৈধতা পাওয়ার ক্ষেত্রে মধ্যস্থতাকারী বা এজেন্টদের ব্যবহার না করার পরামর্শ দিয়েছেন অভিবাসন বিভাগের মহাপরিচালক দাতুক সেরি খাইরুল দাজাইমি দাউদ।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published.