Main Menu

অনলাইনে সৌদি প্রবাসীদের সেবা প্রদান নিশ্চিত করা হবে: রাষ্ট্রদূত

নিউজ ডেস্ক:
সৌদি আরবের বিভিন্ন প্রান্তে বসবাসরত প্রবাসীদের জন্য দূতাবাসের বিভিন্ন প্রয়োজনীয় সেবা অনলাইনে প্রদান করা হবে। ইকামার মেয়াদ উত্তীর্ণ অথবা যাদের নামে কর্মে অনুপস্থিতির মামলা (হুরুব) রয়েছে দেশে ফিরতে ইচ্ছুক এরুপ প্রবাসীদের জন্য অনলাইনে স্পেশাল এক্সিট সেবা প্রদান কার্যক্রমের উদ্বোধনকালে রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী একথা বলেন।

দূতাবাসের বঙ্গবন্ধু চত্বরে এ সেবা কার্যক্রমের শুভ উদ্বোধন করা হয়। এ সময় সেবা নিতে আসা কয়েকশত অভিবাসী ও দূতাবাসের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

রাষ্ট্রদূত বলেন, সৌদি আরবের বিভিন্ন প্রান্তে বসবাসরত প্রবাসী যাঁদের ইকামার মেয়াদ উত্তীর্ণ অথবা যাঁদের নামে কর্মে অনুপস্থিতির মামলা রয়েছে তারা দেশে ফিরতে চাইলে বাংলাদেশ দূতাবাসের ওয়েবসাইটে (www.bangladeshembassy.org.sa) প্রবেশ করে আবেদন করতে পারবেন। আবেদনের পর যে কেউ তাঁর আবেদনের আপডেট ও দেখে নিতে পারবেন। এছাড়া ওয়েবসাইটে অন্যান্য সেবার জন্যও আবেদন করা যাবে।

রাষ্ট্রদূত ড. মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী বিপিএম (বার) বলেন, সৌদি আরবের প্রবাসী বাংলাদেশিরা বিভিন্ন শহরে দূরদূরান্তে বসবাস করেন, তাঁদের কষ্ট করে এ সকল সেবার জন্য আর দূতাবাসে আসার প্রয়োজন হবেনা। সৌদি আরবের বিভিন্ন শহরে স্থাপিত প্রবাসী সেবা কেন্দ্রের মাধ্যমেও প্রবাসীদের পাসপোর্টসহ বিভিন্ন জরুরী সেবা নিয়মিত প্রদান করা হচ্ছে।

ইকামার মেয়াদ উত্তীর্ণ অথবা যাদের নামে কর্মে অনুপস্থিতির মামলা (হুরুব) রয়েছে দেশে ফিরতে ইচ্ছুক প্রবাসীদের ইতিপূর্বে স্বশরীরে দূতাবাসে এসে আবেদন জমা দিতে হত, অনলাইনে আবেদন প্রক্রিয়া শুরু করায় এখন আর দূতাবাসে আসার প্রয়োজন হবেনা। উল্লেখ্য দূতাবাসের পক্ষ থেকে ইতিমধ্যে ১৬,৮৬১ জন মেয়াদ উত্তীর্ণ ইকামাধারী প্রবাসী ও ১১৬৯৮ জন কর্মে অনুপস্থিত মামলা (হুরুব) রয়েছে তাদের স্পেশাল এক্সিট প্রোগ্রামের আওতায় এ সেবা প্রদান করা হয়েছে।

এ সময় দূতাবাসের শ্রম কল্যাণ উইংয়ের পক্ষ থেকে দেশে ফিরতে ইচ্ছুক প্রবাসীদের অনলাইনে আবেদনের জন্য সহায়তা করা হয়। অনুষ্ঠানে অনলাইনে আবেদন ও আপডেট জানার বিষয়ে একটি টিউটোরিয়াল ও প্রদর্শন করা হয়।

অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন দূতাবাসের শ্রম কল্যাণ উইংয়ের কাউন্সেলর মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান। অনুষ্ঠান শেষে সৌদি আরব প্রবাসী, দেশ ও জাতির সার্বিক মঙ্গল কামনা করে মোনাজাত করা হয়।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published.